বিনোদন প্রতিবেদক:

বলিউডের অন্যতম জনপ্রিয় যুগল রণবীর কাপুর ও আলিয়া ভাট এখন ‘মিস্টার অ্যান্ড মিসেস কাপুর’। বৈশাখের সন্ধ্যায় আনুষ্ঠানিকভাবে সেই ঘোষণা দিয়েছেন নববধূ। বিয়ের ছবিতে অন্তর্জালে ঝড় তুলেছেন এই নব-দম্পতি।এমন খবরের মাঝে বৈশাখের প্রথম সন্ধ্যায় ঢাকায় হালকা ঝড়-বৃষ্টি বয়েছে। তবে তার চেয়ে বেশি বেগে ঝড় বইছে চিত্রনায়িকা প্রার্থনা ফারদিন দীঘির মনে। কারণ রণবীর আলিয়ার হয়েছে। 

রণবীর কাপুর দীঘির স্বপ্নের নায়ক। বলিউড তারকার কেমন ভক্ত দীঘি সেই তথ্য জানালেন দুটি তথ্যে, এখনও আমার ফোনের ওয়ালপেপারে রণবীরের ছবি দেওয়া। আর তাঁর জন্য আমার ফোনে আলাদা একটা ফোল্টার আছে; সেখানে সব রণবীরের ছবি।

স্বপ্নের নায়কের বিয়ে মেনেই নিতে পারছেন না দীঘি।দিঘী বলেন ‘আলিয়ার সঙ্গে বিয়ের ছবি একদমই নিতে পারছি না। ওর (রণবীরে) অন্য কোন এক্সের সঙ্গে ক্যাটরিনা কিংবা দিপিকার সঙ্গে বিয়ে হলে সেটা মেনে নিতাম; কিন্তু আলিয়াকে জাস্ট আমি আগে থেকেই মেতে নিতে পারি না।’

দীঘির এমন আবেগী আলাপের মাঝে জানতে চাওয়া রণবীরের বিয়ের রাতে কী করলেন, ‘কষ্টে সারারাত পেস্ট্রি খেয়েছি। আগেই কিনে নিয়ে এসেছিলাম; এই কষ্টে কোন ডায়েট নেই।’

রণবীরের বাসভবন বাস্তু ভবনের গতকাল ভারতীয় সময় তিনটার দিকে সাতপাকে বাঁধা পড়েন রণবীর ও আলিয়া।

বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে তাঁদের মধুচন্দ্রিমা পরিকল্পনার বিভিন্ন খবর প্রকাশ পাচ্ছে। কেউ বলছে বিয়ের পর সুইজারল্যান্ডের তুষারাবৃত আল্পস পর্বত এলাকায় মধুচন্দ্রিমা সারবেন রণবীর-আলিয়া। অপর প্রতিবেদন বলছে, এ যুগল তাঁদের প্রিয় স্থান আফ্রিকায় মধুচন্দ্রিমা উদযাপন করবেন। রণবীর-আলিয়ার মধুচন্দ্রিমা দীর্ঘ হবে না। কারণ, বেশ কয়েকটি সিনেমার শুটের শিডিউল দেওয়া আছে দুজনেরই।

রণবীর-আলিয়ার বিবাহোৎসব ১৩ এপ্রিল শুরু হয়, চলবে ১৭ এপ্রিল পর্যন্ত। আগামীতে এ যুগলকে অয়ন মুখার্জির ‘ব্রহ্মাস্ত্র’ সিনেমায় দেখা যাবে, যেটি মুক্তি পাবে ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২।