নিউজ ডেস্ক

পীরগঞ্জের এক বাকপ্রতিবন্ধী শিশু (১৩) ধর্ষণের শিকার হয়েছেন। ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে। 

উপজেলার ভেন্ডাবাড়ী ইউনিয়নের মিল্কি গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। 

মামলা ও ভুক্তভোগীর পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ভেন্ডাবাড়ী ইউনিয়নের মিল্কি গ্রামের ওই প্রতিবন্ধী শিশুকে বাড়ি সংলগ্ন নিজের মুদি দোকানে রেখে তার বাবা এশার নামাজ পড়তে যান। এরপর তিন যুবক একা পেয়ে প্রতিবন্ধী শিশুটিকে কৌশলে বাড়ির পাশে একটি খড়ের গাদায় নিয়ে ধর্ষণ করেন।

ঘটনার পর শিশুটি অসুস্থ হয়ে পড়ে। পরে এই ঘটনা ভুক্তভোগী তার পরিবারের সদস্যদের জানায়। 

শুক্রবার শিশুটির বাবা পীরগঞ্জ থানায় গিয়ে মামলা করেন (মামলা নং-৫)।
 
মামলার পর পুলিশ অভিযুক্ত তিন যুবককে গ্রেফতার করেছে।

গ্রেফতারকৃতরা হলো-মিল্কি গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে গোলাম আজম মিয়া (২০), একই গ্রামের আব্দুল হাই মন্ডলের ছেলে শাহাদাৎ হোসেন (২০) ও আইজুল হকের ছেলে ডিজু মিয়া (২০)। 

ধর্ষণের শিকার শিশুটির ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য থানায় পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে। 

পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরেস চন্দ্র বলেন, মামলা হওয়ার পরই দ্রুত সময়ের মধ্যে আসামিদের গ্রেফতার করা হয়েছে।